২০শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি

ভ্রমণের জন্যে সবচেয়ে বিপজ্জনক এই দেশগুলো!

editor
প্রকাশিত জুলাই ৩০, ২০১৯
ভ্রমণের জন্যে সবচেয়ে বিপজ্জনক এই দেশগুলো!

অনেকেই আছেন যারা ভ্রমণ করতে খুব ভালোবাসেন। দেশ-বিদেশ ঘুরে বেড়ানোই এদের একমাত্র সখ। তাদেরকে ভৌগলিক সীমারেখার বাইরের দুনিয়াটা দূর্বার আকর্ষণে টানে। একটি সুন্দর স্থান যেমন বারবার দেখার জন্য মনকে ব্যাকুল করে তেমনি বিশ্বের কিছু খারাপ দেশে ভ্রমণ করা থেকে বিরত থাকা বুদ্ধিমানের কাজ হবে। এই খারাপ দেশ সমূহের তালিকা মূলত জনমত জরীপ, নিরাপত্তা, খাদ্য, পরিবহন ব্যবস্থা এবং সুযোগ ও অপরাধ এই সব উপাদানের উপর ভিত্তি করে তৈরী করা হয়েছে। কারণ আপনার আনন্দময় ভ্রমণটি কখনোই নষ্ট হওয়া ঠিক নয়। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক সেই বিপজ্জনক দেশগুলো সম্পর্কে-

সোমালিয়া
আফ্রিকার সব দেশে স্ফটিক-স্বচ্ছ সৈকত, উষ্ণমগুলির অঞ্চলের বৃক্ষহীন তৃণভূমি কিংবা বন্যপ্রাণীর অবাধ বিচরণ নেই। বাস্তবতা হচ্ছে এই যে আফ্রিকা তাদের দারিদ্রতা এবং দূর্বল ব্যবস্থাপনা সামলাতে হিমশিম খাচ্ছে। সোমালিয়া এর আদর্শ উদাহারণ। শুধুমাত্র দারিদ্র্য-ই একমাত্র কারণ নয়, সোমালিয়ার শহরগুলো মানব পাচার, জলদস্যুতা, অবৈধ অস্ত্র ব্যবসা এবং ড্রাগ চোরাচালানের মতো কাজের জন্য প্রসিদ্ধ। বিশ্বের অন্যান্য যেকোন দেশের তুলনায় সোমালিয়ায় অপরাধের হার অনেক বেশি। তাই সোমালিয়ায় ভ্রমণের আগের আরেকবার ভেবে দেখবেন?

গায়ানা
গায়ানা দক্ষিণ আমেরিকা ক্যারিবীয় উপকূলবর্তী একটি ছোট দেশ। যদিও দেশটি ভ্রমণে তেমন ক্ষতির আশংকা নেই, কিন্তু তবুও এটি একটি বাড়তি সতর্কতা কারণ গায়ানার জর্জটাউন মতো শহর পর্যটকদের জন্য বেশ বিপজ্জনক বিশেষ করে রাতের বেলায়। এছাড়াও ভেনেজুয়েলা এবং সুরিনাম সাথে সীমান্তে বিরোধ জন্য গায়ানা পরিচিত। যদিও দেশটিতে কিছু সুন্দর জলপ্রপাত, জাতীয় উদ্যান, বন্যপ্রাণীর আবাসস্থল রয়েছে কিন্তু এসবের বিকল্প দক্ষিণ আমেরিকান ও ক্যারিবিয়ান অঞ্চলে খুঁজে নেয়াই বুদ্ধিমান কাজ হবে।

আফগানিস্তান
অন্য সব দেশ থেকে আফগানিস্থান আলাদা। শ্রেষ্ট নাটুকে রাস্তা এবং অনিন্দ সুন্দর পর্যটকদের আকর্ষণ করতে বাধ্য। খেলাধুলার কিছু কিছু শাখায় আফগানদের সাফল্য ও আফগানিস্থানের খাঁটি কাবাব পৃথিবী সমাদৃত। কিন্তু আফগানিস্থানের রাজনৈতিক এবং অর্থনৈতিক অবস্থা মোটেও ভ্রমণকারীদের জন্য সহায়ক নয়। যুদ্ধপরবর্তী সময়ের ধাক্কা এখনো দেশটি সামলিয়ে উঠতে পারেনি বরং দেশটির স্থানীয় বাসীন্দারা পর্যন্ত আতঙ্কে দিনাতিপাত করে। নিরাপত্তার ব্যাপারে আপোষ করে দেশটিতে ভ্রমণ করা মোটেও সুখকর হবে না।

টুভালু
আপনি এই দেশর নাম কখনো শুনে থাকতে পারেন। টুভালু ছোট্ট এক দেশ এবং বিশ্বের ক্ষুদ্রতম জাতিগুলোর মধ্যে অন্যতম। এই দেশ সমুদ্রতল থেকে মাত্র ৭ ফুট উচ্চতায় আছে। যার কারণে ভৌগলিক ও আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের মতে এই দেশ আগামী ৩০ বছরের মধ্যে তলিয়ে যাবে। টুভালুতে পরিবহন এবং সুযোগ-সুবিধা খুবই খারাপ। এছাড়াও, এই ছোট দেশে পৌঁছানোর জন্য ফিজি থেকে বিমানে চড়তে হয় এবং সপ্তাহে মাত্র দুটি ফ্লাইট আছে। টুভালুতে কোন পর্যটন কেন্দ্র, চমৎকার সৈকত কিংবা আরামপ্রদ হোটেল এর কিছুই আপনি পাবেন না। আপনি যদি সৈকতে ভ্রমণের জন্য টুভালুকে বেছে নিয়ে থাকেন তবে অন্য কোন দেশ দেখুন।


সংবাদটি পড়ে ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
July 2019
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
293031  

https://www.booked.net

+22
°
C
+22°
+19°
London
Monday, 29

 

See 7-Day Forecast