Fri. May 7th, 2021

মেলায় এসেছে নতুন বই আসছে , হচ্ছে না ক্রেতা সমাগম

বিকেল পাঁচটার দিকে কিছু কিছু মানুষ আসতে থাকেন। তাতে মেলার নিষ্প্রাণ দশা ঘুচলেও বেচাকেনা খুব একটা হয়নি। এটা অবশ্য নতুন নয়, এবার মেলার শুরু থেকেই বই বিক্রির পরিমাণ কম।

কথাশিল্পী মোস্তফা কামাল বললেন, বইমেলা এবার ফেব্রুয়ারি মাসে হয়নি। তাই আবেগ-অনুভূতির জায়গায় একটা ঘাটতি আছে। করোনার কারণে মানুষের আয়-রোজগারও কমেছে। বই কেনা কমার সেটিও একটি কারণ। তিনি জানালেন, এবার মেলায় তাঁর চারটি নতুন বই এসেছে। অন্যপ্রকাশ এনেছে ইতিহাসভিত্তিক উপন্যাস ১৯৭৫। পার্ল এনেছে “অপরাজিতা” এবং “অনন্যা” থেকে এসেছে “কয়েক জন কিশোর মুক্তিযোদ্ধা”।

মেলার উত্তর পাশে টিএসসি প্রান্তে বৈভব প্রকাশনী এবার বেশ কিছু কবিতার বই এনেছে। তাদের নতুন বইয়ের মধ্যে রয়েছে কবি সুব্রত অগাস্টিন গোমেজের “ঢাকা ডাকে”, তরুণ কবি তাসনুভা অরিনের “জলপাই বিষাদ পায়রা” ও সাখাওয়াত টিপুর “পাপ পুণ্য”। স্টলের বিক্রেতারা জানান, তরুণদের অনেক বই তাঁরা এনেছেন, কিন্তু মেলায় এবার বিক্রি নেই।

বিক্রি যেমনই হোক, “লেখক বলছি মঞ্চে” পাঠকের মুখোমুখি বসে আলোচনায় মুখর হয়ে উঠছেন লেখকেরা। উত্তর দিচ্ছেন কৌতূহলী পাঠকের নানা প্রশ্নের। কাল নিজের লেখা নিয়ে কথা বলেছেন সাইম রানা, আহমাদ মোস্তফা কামাল ও সাইফুল ভূঁইয়া।

প্রথমার বই-

প্রথমার স্টলে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক বইগুলো ভালো বিক্রি হয়েছে গতকাল। নতুন বইও এসেছে দুটো। এর একটি আলতাফ পারভেজের লেখা “গ্রামসি ও তাঁর রাষ্ট্রচিন্তা”। আলতাফ পারভেজের লেখালেখি ও গবেষণার প্রধান আগ্রহ দক্ষিণ এশিয়ার ইতিহাস, তবে রাষ্ট্র বিষয়েও তিনি লেখালেখি করেন। এই বইয়ে তিনি ইতালির বিপ্লবী আন্তনিও গ্রামসির বহুল আলোচিত আধিপত্যের ধারণা বা হেজিমনি তত্ত্ব সম্পর্কে আলোচনা করেছেন। ফ্যাসিস্ট মুসোলিনির কারাগারে বন্দী গ্রামসি তাঁর ২৯ খণ্ডের প্রিজন নোটবুকস-এ আধুনিক কালে রাষ্ট্র ও রাজনীতির বাস্তব ধরন বিষয়ে অত্যন্ত মৌলিক এক বিশ্লেষণ হাজির করেছিলেন। তারই আলোকে এ বইয়ে গ্রামসির দার্শনিক মনীষার পরিচয় ও তাঁর রাষ্ট্রচিন্তার রূপরেখা তুলে ধরা হয়েছে।

অন্য বইটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন অধ্যয়ন বিভাগের অধ্যাপক রাশেদ আল মাহমুদ তিতুমীরের “যুদ্ধোত্তর থেকে করোনাকাল” , “বাংলাদেশের পঞ্চাশ বছরের রাজনৈতিক অর্থনীতি”। এতে তিনি গত অর্ধশতাব্দীর বাংলাদেশের অর্থনীতির মৌলিক প্রশ্নগুলোর উত্তর খুঁজেছেন।

নতুন বই-

মেলায় গতকাল নতুন বই এসেছে ১৭৫টি। উল্লেখযোগ্য বইয়ের মধ্যে অনুপম এনেছে “আত্মজীবনী”: রণেশ মৈত্র, জাতীয় প্রেসক্লাব এনেছে “বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ”: কলকাতার সাংবাদিক, কলকাতা প্রেসক্লাব। বইটি যৌথভাবে সংকলন ও সম্পাদনা করেছেন কলকাতা প্রেসক্লাবের সভাপতি স্নেহাশিস সুর ও বাংলাদেশের জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সাংসদ মুহম্মদ শফিকুর রহমান।


সংবাদটি পড়ে ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *