২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৯শে সফর, ১৪৪৩ হিজরি

বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের মূল্যায়ন হয়নি – শমসের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম

editor
প্রকাশিত আগস্ট ২০, ২০২১
বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের মূল্যায়ন হয়নি – শমসের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম

নিউজ ডেস্কঃ

বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডিয়াম সদস্য শমসের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম বঙ্গবন্ধুর  ৭  মার্চের ভাষণকে স্বাধীনতা যুদ্ধের ঘোষণা উল্লেখ করে বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর এই ভাষণের মাধ্যমে এক মুহূর্তে দেশে স্বাধীনতা যুদ্ধ শুরু হয়েছিল। তিনি বলেন, কিন্তু দু:খের বিষয় আমরা বঙ্গবন্ধুর  এই ঐতিহাসিক ভাষণকে সঠিকভাবে এখনো মূল্যায়ন করতে পারিনি।

জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আজ রবিবার বিকাল ৪ থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত বিকল্পধারা বাংলাদেশ আয়োজিত এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় বক্তৃতা প্রসঙ্গে তিনি এ কথা বলেন।

বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নান এমপি’র সভাপতিত্বে এবং যুগ্ম মহাসচিব এনায়েত কবীরের সঞ্চালনায় অয়োজিত আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক মন্ত্রী গোলাম সারোয়ার মিলন, সাবেক এমপি ও চাকসু’র সাবেক ভিপি  মজহারুল হক শাহ চৌধুরী,  অধ্যাপক ডা. রফিক চৌধুরী, যুক্তরাজ্য বিকল্পধারার সভাপতি মো. অহিদ উদ্দিন, বিকল্পধারার সহ-সভাপতি মো. মহসিন চৌধুরী, ওবায়দুর রহমান মৃধা, বি.এম নিজাম উদ্দিন, দপ্তর সম্পাদক ওয়াসিমুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় নেতা আশরাফুল ইসলাম, যুবধারার সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা সারোয়ার, যুবধারার সাংগঠনিক সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম শিহাব,  চলচ্চিত্রধারার আহ্বায়ক হানিফ মাহমুদ,  মহিলানেত্রী আয়েশা সিদ্দিকা দিতি প্রমুখ।

 লন্ডন থেকে বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে স্বরচিত কবিতা পাঠ করেন লন্ডনের স্পেক্ট্রাম বাংলা রেডিও ও টেলিভিশনের পরিচালক মিছবাহ জামাল।

এর আগে রবিবার সকাল ১০ টা থেকে বিকল্পধারার বাড্ডার দলীয় কার্যালয়ে কোরানখানি, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর উত্তর বিকল্পধারার সভাপতি ড. আবু নোমান, প্রচার সম্পাদক নূর মোহম্মদ, যুবধারার সাংগঠনিক সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম শিহাব, বিকল্পধারা মহাসচিবের একান্ত সহকারি জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী প্রমুখ।

শমসের মবিন চৌধুরী আরও বলেন ,একমাত্র বঙ্গবন্ধুর দিকনির্দেশনা অনুযায়ী আমরা স্বাধীনতা যুদ্ধ করেছি। এই যুদ্ধ ছিল স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে সাহসিকতার আপসহীন রাজনীতির যুদ্ধ। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু চাইলে আইয়ুব খান তাঁকে পূর্ব পাকিস্তানের গভর্নর করতেও  রাজি হতেন। কিন্তু বঙ্গবন্ধু আপস করেননি।

এই বীরমুক্তিযোদ্ধা বলেন, ১৯৭১ সালের ৭ মার্চে বঙ্গবন্ধুর ভাষণের পর আমরা স্বাধীনতাযুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়তে এক মুহুর্ত দেরি করিনি।, কিন্তু দুঃখের বিষয় বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের সঠিক তাৎপর্য আমরা মূল্যায়ন করতে পারিনি। ৭ মার্চের ভাষণে ছিল পাকিস্তানের ২৩ বছরের বৈরী রাজনীতি এবং বঞ্চনার ইতিহাস। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু তৎকালীন ইয়াহিয়া খানের সামরিক সরকারকে আলটিমেটাম দিয়েছিলেন এই ভাষণে। তিনি বলেছিলেন, গণ হত্যার তদন্ত ও  সামরিক আইন প্রত্যাহার করে  সেনাবাহিনীকে ব্যারাকে ফিরিয়ে নিতে হবে। জন প্রতিনিধিদের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর করতে হবে।

বীর বিক্রম শমসের মবিন চৌধুরী আরো বলেন বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের একটি গণতান্ত্রিক এবং অসাম্প্রদায়িক সমাজ গঠনের ব্যর্থতার দায়দায়িত্ব আমাদের সবাইকে নিতে হবে। তিনি বলেন, মুক্তিযুদ্ধের মূল্যবোধকে অবশ্যই ধরে রাখতে হবে । এতে কৃষক, শ্রমিক, ব্যবসায়ী, শিক্ষক, চাকরিজীবী সবারই দায়িত্ব রয়েছে। বিভাজন নয় ঐক্যবদ্ধভাবে দেশ গঠনে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। বঙ্গবন্ধুর আদর্শ সামনে রেখে শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্ব দেশকে আরো অগ্রগতি ও সমৃদ্ধির পথে নিয়ে যেতে সক্ষম হবে বলে এই বীর মুক্তিযোদ্ধা আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

আলোচনা সভার সভাপতি মেজর (অব.) আবদুল মান্নান এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশের জন্ম হতো না। তিনি শেখ হাসিনার সরকারের ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকান্ডের প্রশংসা করে বলেন, তাঁর নেতৃত্বে দেশ অগ্রগতির পথে আরো এগিয়ে যাবে। বিকল্পধারা সরকারের উন্নয়নের রাজনীতিকে সমর্থন দিয়ে যাবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।


সংবাদটি পড়ে ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

https://www.booked.net

+22
°
C
+22°
+19°
London
Monday, 29

 

See 7-Day Forecast